ঝিকরগাছায় প্রথম বারের মত তিনদিনের ফুল উৎসব হচ্ছে

এখন সময়: বুধবার, ১ ফেব্রুয়ারি , ২০২৩ ০৮:১৪:৫৩ am

এম আলমগীর, ঝিকরগাছা: ফুলের বাণিজ্যিক সম্প্রসারণের লক্ষ্যে আজ বৃহস্পতিবার থেকে প্রথমবারের মতো শুরু হতে যাচ্ছে তিন দিনব্যাপী ‘ফুল উৎসব ২০২৩’। ঝিকরগাছা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে  ও জেলা প্রশাসনের সার্বিক সহযোগিতায় আজ বিকেলে পানিসারা ফুলমোড়ে এই আয়োজনের উদ্বোধন করা হবে।

আয়োজকরা বলছেন, ঐতিহ্য ও ঐশ্বর্যের জনপদ যশোর জেলায় ফুলের রাজধানীখ্যাত ঝিকরগাছা উপজেলার গদখালী অঞ্চল। মূলত উপজেলার গদখালী, পানিসারা ও নাভারণ ইউনিয়নের বিস্তীর্ণ এলাকাজুড়ে রয়েছে হরেক রকমের ফুলচাষ। বৈচিত্র্যময় এ ফুলের রাজ্যকে সবার সামনে তুলে ধরতে প্রথমবারের মতো ঝিকরগাছার পানিসারায় আয়োজিত হতে যাচ্ছে ফুল উৎসব।

তিনদিনব্যাপী এই মেলায় ফুল উৎপাদক, ফুল ব্যবসায়ী (পাইকারী ও খুচরা), ফুল সেক্টরের সংশ্লিষ্ট সংগঠন অংশ গ্রহণ করবে। ২০টি নার্সারী, ৩টি পর্যটন প্যাভিলিয়ন ও ১০ টি স্টল সেজেছে উৎসবের সাজে। মেলা প্রান্তে দর্শনার্থীদের যাতায়াতের জন্য যাত্রীবাহী ভ্যান ও অটো রিক্সা গুলোও ফুল দিয়ে সাজানো হয়েছে। 

তিনদিনব্যাপী অনুষ্ঠানের প্রথম দিনে রয়েছে, উদ্বোধনী অনুষ্ঠান, ফুল প্রদর্শনী ও মেলা, প্রধান অতিথিসহ অতিথিবৃন্দ কতৃক মেলার স্টল পরিদর্শন ও সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন, যশোর জেলা প্রশাসক মো. তমিজুল ইসলাম খান।

দ্বিতীয় দিনে রয়েছে, নারী ফুলচাষীদের সাথে সরকারের উন্নয়ন দর্শন সম্পর্কে উঠান বৈঠক, শিশুদের ‘ফুল’ অংকন প্রতিযোগিতা।

তৃতীয় দিনে রয়েছে, উঠান বৈঠকসহ নারী নেতৃত্বে গ্রুপভিত্তিক প্রশিক্ষণ কর্মশালা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সর্বশেষ রয়েছে কৃষক সম্মাননা ও সমাপনী অনুষ্ঠান।

মেলায় প্রতিদিন চলবে ফুল প্রদর্শনী ও মেলা। এছাড়া মেলা প্রাঙ্গনে প্রতিদিন বৃহত্তর কুষ্টিয়া, যশোর অঞ্চলের কৃষি উন্নয়ন প্রকল্পের কৃষি প্রযুক্তি প্রদর্শনী করা হবে।

এ ব্যাপারে যশোর ফুল উৎপাদক ও বিপনন সমবায় সমিতি লিমিটেডের সভাপতি আব্দুর রহিম বলেন, এই উৎসব ফুলের রাজধানীকে প্রসার, প্রচার ও অর্থনৈতিক সমৃদ্ধির পথে আরো এগিয়ে দিবে। প্রতিবছর এই আয়োজনের ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে হবে। নিঃসন্দেহে এই মেলা আয়োজনে জেলা ও উপজেলা প্রশাসন প্রশংসার দাবি রাখে। এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে আমরা আয়োজক ও উদ্যাক্তাদের ধন্যবাদ জানাই।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মাহবুবুল হক বলেন, ফুলের বাণিজ্যিক সম্প্রসারণ অর্থাৎ বিশ্ববাজার ও দেশীয় বাজারে ঝিকরগাছার উৎপাদিত ফুলকে আরও পরিচিত করতে আমাদের এই আয়োজন। আমরা আশা করি, এই উৎসবের মাধ্যমে ঝিকরগাছা উপজেলার ফুলের রাজ্য হিসাবে সুখ্যাতি আরো আড়ম্বড়পূর্ণ হয়ে উঠবে।

যশোর জেলা প্রশাসক মো. তমিজুল ইসলাম খান বলেন, প্রথমবারের মতো ঝিকরগাছার গদখালীতে এই ফুলের উৎসব হচ্ছে। এই উৎসবে সবাইকে আমি আমন্ত্রণ জানাচ্ছি।