ঐতিহ্যবাহী ষাঁড়ের লড়াই দেখলেন হাজারো দর্শক

এখন সময়: সোমবার, ৩০ জানুয়ারি , ২০২৩ ০১:১৪:১৯ am

অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি: যশোরের অভয়নগর উপজেলার পায়রা ইউনিয়নে গ্রাম-বাংলার ঐতিহ্যবাহী ষাঁড়ের লড়াই হয়েছে। রোববার বিকেলে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে ষাঁড়ের লড়াই প্রতিযোগিতা হয়। ইউনিয়নের ঘোড়াদাইড় মাঠে পায়রা বাজার উন্নয়ন কমিটি এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করে। অর্ধশতাধিক ষাঁড়ের মধ্যে এই লড়াই প্রতিযোগিতা হয়। বিভিন্ন স্থান থেকে বিপুল সংখ্যক নারী-পুরুষ, শিশু-কিশোর ষাঁড়ের লড়াই দেখতে আসে।

ষাঁড়ের লড়াই দেখতে আসা সবুজ হোসেন, নুর ইসলাম বাবু, সাইফুল ইসলাম, জিহাদুল খান, আল আমিন সাগর বলেন, ষাঁড়ের লড়াই আমাদের একটি ঐতিহ্যবাহী খেলা। এখনো যে এই খেলা হারিয়ে যায়নি এটি আমাদের সৌভাগ্য। পুরস্কার বড় কিছু নয়; দর্শকদের আনন্দ দেয়ার জন্যই হাজার হাজার টাকা খরচ করে ষাঁড়ের লড়াইয়ে অংশ নিতে এসেছেন বলে মন্তব্য করেন আব্দুল্লাহ ইসলাম একটি ষাঁড়ের মালিক। আয়োজক কমিটির প্রধান ইউপি চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান বলেন, গ্রাম-বাংলার এই ঐতিহ্যবাহী খেলাটিকে ধরে রাখতেই আমাদের এ আয়োজন।

ষাঁড়ের লড়াই প্রতিযোগিতার সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মেজাবাহ উদ্দিন, অভয়নগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) একেএম শামীম হাসান, নওয়াপাড়া কলেজের অধ্যক্ষ রবিউল হাসান, নওয়াপাড়া প্রেসক্লাবের সভাপতি নজরুল ইসলাম মল্লিক, সাধারণ সম্পাদক মোজাফ্ফার আহমেদ, যুগ্ম সম্পাদক সৈয়দ জাহিদ মাসুদ তাজ, দপ্তর সম্পাদক শাহিন হোসেন, ইউপি চেয়ারমান মফিজ উদ্দিন প্রমুখ।

এবারের লড়াইয়ে প্রথম পুরস্কার পেয়েছে নজরুল ফকিরের ‘বুনো ষাঁড়’। পুরস্কার হিসেবে ষাঁড়ের মালিককে দেয়া হয়েছে ১৬ হাজার টাকা। দ্বিতীয় পুরস্কার পেয়েছে ঘোড়াদাইড় গ্রামের জাহাঙ্গীর হোসেনের ষাঁড়। ষাঁড়ের মালিক পেয়েছেন ১০ হাজার টাকা। ৩য় পুরস্কার ও ৪র্থ পুরস্কার ৫ হাজার টাকা করে দেয়া হয়েছে।