ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর , ২০২১ ● ২ আশ্বিন ১৪২৮

মণিরামপুরে আনসার আল-ইসলামের ৮ সদস্যের বিরুদ্ধে চার্জশিট

Published : Saturday 24-July-2021 22:14:40 pm
এখন সময়: শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর , ২০২১ ১৪:০৯:২২ pm

নিজস্ব প্রতিবেদক: যশোর মণিরামপুরে সন্ত্রাস বিরোধী আইনের একটি মামলায় ‘আনসার আল ইসলাম’ এর ৮ সদস্যকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দিয়েছে র‌্যাব-৬। ঘটনার সাথে জড়িত থাকলেও দুইজনের পূর্নাঙ্গ ঠিকানা না পওয়ায় তাদেরকে অব্যাহতির আবেদন করা হয়েছে চার্জশিটে। মামলার তদন্ত শেষে আদালতে এ চার্জশিট জমা দিয়েছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মাসুদ করিম। অভিযুক্ত আসামিরা হলো, যশোর মণিরামপুরের হাসাডাঙ্গা গ্রামের আব্দুল গফুরের ছেলে রায়হান উদ্দিন, রহিম বক্সের ছেলে সোহরাব হোসেন, সৈয়দ মাহমুদপুর গ্রামের দেলোয়ার হোসেনের ছেলে আবু বক্কার সিদ্দিক, শাহিনুর রহমানের ছেলে হাবিবুল্লাহ হেলাল, শ্যমকুড় গ্রামের আসাদুজ্জামান দফতরীর ছেলে মোহতাসিম বিল্লাহ শামীম, আমিনপুর গ্রামের হাফিজুর রহমানের ছেলে শাকিল হোসেন সাগর, বাঙ্গালিপুর গ্রামের হায়দার খানের ছেলে শিমুল হোসেন, গোপলগঞ্জের কোটালিপাড়ার হিরণ গ্রামের দক্ষিণপাড়ার মৃত মজিবর রহমানের ছেলে আবু নাঈম হাম্মাদ ওরফে ত্বলহা ।

মামলার অভিযোগে জানা গেছে, ২০১৯ সালের ২০ জুলাই রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৬ এর একটি দল মণিরামপুরের সৈয়দ মাহামুদপুর গ্রামে জনৈক দেলোয়ার হোসেনের বাড়িতে অভিযান চালায়।  এ সয়ম রায়হান উদ্দিন ও আবু বক্কারকে আটক ও ঘর তল্লাশি করে ল্যাপটপ, মোবাইল সেট, বিপুল পরিমাণ উদ্রবাদী বই, লিফলেট, এ সংক্রান্ত সফট ও হার্ড কপি এবং তাদের কার্যপদ্ধতির বিস্তারিত বিবরণসহ কাগজপত্র উদ্ধার করা হয়। এ ব্যাপারে র‌্যাব-৬ এর এসআই হাফিজুর রহমান বাদী হয়ে সন্ত্রাস বিরোধী আইনে মণিরামপুর থানায় একটি মামলা করেন। মামলাটি প্রথমে থানা পুলিশ পরে ব্যাব-৬ তদন্তের দায়িত্ব পায়। মামলার তদন্তকালে আটক আসামি দেয়া তথ্য, স্বীকারোক্তি জবানবন্দি ও সাক্ষীদের বক্তব্যে ঘটনার সাথে জড়িত থাকায় ওই ৮ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে এ চার্জশিট জমা দিয়েছেন তদন্তকারী কর্মকর্তা। ঘটনার সাথে জড়িত থাকরেও পূর্ণাঙ্গ ঠিকানা না পাওয়ায় উমায়ের ওরফে মাসুল ও গোলামের অব্যাহতি আবেন করা হয়েছে চার্জশিটে। চার্জশিটে অভিযুক্ত আবু নাঈম ও সোহরাব হোসেনকে পলাতক দেখানো হয়েছে।

 



আরও খবর