ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ রবিবার, ১৭ অক্টোবর , ২০২১ ● ২ কার্তিক ১৪২৮

ফকিরহাটের নিন্মাঞ্চলে এখনো ঢুকছে জোয়ারের পানি

Published : Sunday 30-May-2021 21:41:45 pm
এখন সময়: রবিবার, ১৭ অক্টোবর , ২০২১ ০৬:০৮:৪৮ am

ফকিরহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : বাগেরহাটের ফকিরহাট উপজেলার মূলঘরে চিত্রানদীর ভেড়িবাঁধের বিভিন্ন অংশ ভেঙে জোয়ারের পানিতে ভেসে গেছে অর্ধশতাধিক মৎস্য ঘের ও শাতাধিক বাড়িঘর। ঘূর্ণিঝড় ইয়াস ও পূর্ণিমার প্রভাবে ফকিরহাটে ভৈরব নদ, চিত্রানদীসহ বিভিন্ন নদ-নদী ও খালে স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে দেড় থেকে দুই ফুট পর্যন্ত পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। ভৈরব নদ ও চিত্রা নদীর তীরবর্তী এলাকার নিন্মাঞ্চলে জোয়ারের পানি ঢুকে পড়েছে।

জোয়ারের পানির তোড়ে চিত্রানদীর কয়েকটি অংশ ভেঙ্গে যায়। ফলে গুড়গুড়িয়া, পুটিয়া গ্রাম সহ গোদাড়া এলাকার নদীর চর এলাকার অদিকাংশ মৎস্য ঘের ও বসতবাড়ি জোয়ারের পানিতে প্লাবিত হয়েছে। এতে মৎস্য চাষিদের ব্যপক ক্ষতি আশঙ্কা রয়েছে বলে স্থানীয় মৎস্য চাষিরা জানান।

মূলঘর ইউপি চেয়ারম্যান হিটলার গোলদার জানান, গত কয়েকদিন ধরে ইয়াস ও পূর্ণিমার প্রভাবে নদীতে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। চিত্রানদীর চরে পানি উন্নয়ন বোর্ডের ভেড়িবাঁধের আশঙ্কাজনক কয়েকটি স্থানে স্থানীয়দের সহযোগিতায় মাটি দিয়ে বাঁধ রক্ষা করার চেষ্টা করেও বিফলে গেছে। জোয়ারের পানির চাপে সে সব অংশ ভেঙে তলিয়ে গেছে অনেক মৎস্য ঘের ও বসতবাড়ি। নদীতে পানির চাপ না কমলে ভেড়িবাঁধের যে সব অংশ ভেঙে গেছে তা পুনরায় মেরামত করা যাচ্ছে না।

নিন্মাঞ্চল প্লাবিত হওয়ার খবর পেয়ে চিত্রানদীর ভাঙন এলাকা পরিদর্শন করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান স্বপন দাশ ও উপজেরা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সানজিদা বেগম। পরিদর্শন শেষে তারা জানান, নদীতে জোয়ারের পানির চাপ কমলে ভেড়িবাঁধের যে সব অংশ ভেঙে গেছে তা দ্রুত ঠিক করা হবে ।