ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ সোমবার, ২৫ অক্টোবর , ২০২১ ● ৯ কার্তিক ১৪২৮

শেষ সময়ের প্রচারণায় জমজমাট দাকোপের ইউপি নির্বাচন

Published : Wednesday 15-September-2021 21:12:54 pm
এখন সময়: সোমবার, ২৫ অক্টোবর , ২০২১ ০৫:০৩:২২ am

আজগর হোসেন ছাব্বির,দাকোপ: খুলনার দাকোপ উপজেলায় স্থগিত হওয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২০ সেপ্টেম্বর। শেষ মুহূর্তের  প্রচার প্রচারনায় ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রার্থীরা। উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে ৩৪ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মধ্যে ৩ নম্বর লাউডোব ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের শেখ যুবরাজ বিনা প্রতিদ্ব›িদ্বতায় নির্বাচিত হওয়ায় এখন মাঠে আছেন ৩৩ জন। এ ছাড়া ২৭টি সংরক্ষিত ওয়ার্ডে ১১৬ জন নারী প্রার্থী ও ৮১টি সাধারণ ওয়ার্ডে ৩৬৩ জন প্রার্থী ভোটের লড়াইয়ে মাঠে আছেন।

দাকোপ উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, এবারের নির্বাচনে ১ লাখ ১৭ হাজার ৫৯১ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। ৮টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্ব›দ্বী প্রার্থীরা হলেন ১ নং পানখালী ইউনিয়নে আ.লীগের শেখ আব্দুল কাদের প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী শেখ সাব্বির আহমেদ প্রতীক (আনারস), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ‘র জাহিদুল ইসলাম শেখ প্রতীক (হাত পাখা) । ২ নং দাকোপ ইউনিয়নে আ‘লীগের বিনয় কৃষ্ণ রায় প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী সঞ্জয় কুমার রায় প্রতীক (আনারস) ও গৌতম সরকার প্রতীক (মটর সাইকেল)। ৪ নং কৈলাশগঞ্জ ইউনিয়নে আ‘লীগের মিহির মন্ডল প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী দেবব্রত সরকার প্রতীক (আনারস), বাংলাদেশ ওয়ার্কার্স পার্টির গৌরাঙ্গ প্রসাদ রায় প্রতীক (হাতুড়ী), চয়ন রায় প্রতীক (ঘোড়া), মন্টুলাল রায় প্রতীক (মটর সাইকেল)। ৫ নং সুতারখালী ইউনিয়নে আ‘লীগের মাসুম আলী ফকির প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী জি.এম আশরাফ হোসেন প্রতীক (অটোরিক্সা), সাহাবুদ্দিন গাজী প্রতীক (চশমা), দেবপ্রসাদ বৈদ্য প্রতীক (ঘোড়া), লিয়াকত আলী সানা প্রতীক (আনারস) এবং আব্দুল ওহাব গাজী প্রতীক (মটর সাইকেল)। ৬ নং কামারখোলা ইউনিয়নে আ.লীগের পঞ্চানন কুমার মন্ডল প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী সমরেশ চন্দ্র রায় প্রতীক (আনারস), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ‘র আব্দুল কাদের সানা প্রতীক (হাত পাখা)। ৭ নং তিলডাঙ্গা ইউনিয়নে আ’লীগের রনজিত কুমার মন্ডল প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী জালাল উদ্দিন গাজী প্রতীক (আনারস), অরুন প্রকৃতি রায় প্রতীক (মটর সাইকেল), তরুন রায় প্রতীক (চশমা)। ৮ নং বাজুয়া ইউনিয়নে আ’লীগের মানস কুমার রায় প্রতীক (নৌকা), স্বতন্ত্র প্রার্থী দেবপ্রসাদ গাইন প্রতীক (আনারস), রুপালী ইসলাম মির্জা প্রতীক (ঘোড়া)। ৯ নং বানীশান্তা ইউনিয়নে আ’লীগের সুদেব কুমার রায় প্রতীক (নৌকা), সুধাংশু প্রার্থী কুমার বৈদ্য প্রতীক (আনারস), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ‘র শেখ জহিরুল ইসলাম প্রতীক (হাত পাখা), স্বতন্ত্র জগদীশ মৃধা প্রতীক ঘোড়া), সাইফুল ইসলাম প্রতীক (চশমা), সত্যজিৎ গাইন প্রতীক (মটর সাইকেল)। এবারের নির্বাচনে নৌকার সাথে মূল প্রতিদ্বন্দিতায় থাকা স্বতন্ত্র প্রার্থীরা আওয়ামী সমর্থক বিদ্রোহী প্রার্থী বলে জানা গেছে।

করোনার প্রভাবে শেষ মুহূর্তে স্থগিত হওয়া প্রথম ধাপের এই নির্বাচন নিয়ে প্রার্থী এবং ভোটারদের মাঝে আছে ভিন্নমূখী সংশয়। ঘোষিত সময়ে ভোট হবে কিনা এমন সংশয়ে শুরুতে প্রার্থীদের প্রচারলণায় ছিল ঢিলেঢালা ভাব। আর শেষ পর্যন্ত নিরপেক্ষ প্রভাবমুক্ত ভোট দিতে পারবে কিনা ভোটারদের মাঝে ছিল এমন নানা প্রশ্ন। তবে সময়ের সাথে সাথে সকল সংশয় দূর হয়ে শেষ মুহূর্তে জমে উঠেছে প্রচারনা। বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনা ছাড়া নির্বাচনী পরিবেশ আছে শান্ত।  প্রতিদ্ব›দ্বী প্রার্থীরা সকাল থেকে রাত পর্যন্ত প্রচার প্রচারণায় ব্যস্ত সময় পার করছেন। খুলনা জেলা প্রশাসক শান্তিপূর্ণ ভোট গ্রহণ নিশ্চিত করতে সকল পক্ষকে নিয়ে সভা করেছেন। প্রতিটি ইউনিয়নে পুলিশের পক্ষ থেকে চলছে নির্ভয়ে ভোট দেয়ার প্রতিশ্রæতিসহ জনসচেতনতাসভা।