ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ বুধবার, ২৭ অক্টোবর , ২০২১ ● ১২ কার্তিক ১৪২৮

ঝিকরগাছার নির্বাসখোলায় সরকারি রাস্তা দখল করে স্থাপনা তৈরি

Published : Monday 02-August-2021 21:20:27 pm
এখন সময়: বুধবার, ২৭ অক্টোবর , ২০২১ ২১:৪৮:২৮ pm

ঝিকরগাছা প্রতিনিধি: যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলার নির্বাসখোলা ইউনিয়নের পারবেড়ারওপানি গ্রামে সরকারী জমি দখল করে স্থপনা তৈরির অভিযোগ উঠেছে। ঘটনায় লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে স্থানীয় চেয়ারম্যান বিষয়টি নিষ্পত্তি করলেও একটি পক্ষ সালিশ না মেনে সরকারি জায়গা দখল করেছে। ফলে রাস্তা ব্যবহারকারীদের যাতায়াতের সমস্যা হচ্ছে বলে অন্য পক্ষের অভিযোগ।

লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ইউনিয়নের নন্দীডুমুরিয়া হতে পাঁচপোতা ভায়া পারবেড়ারওপানি গ্রামের মূল সড়ক সংলগ্ন একটি সরকারি বাইপাস সড়ক রয়েছে। সেই সড়ক দিয়ে ১৬ টি পরিবার যাতায়াত করে। সরকারি ম্যাপ অনুযায়ী ১০ফুট চওড়া এই সড়টির শেষ অংশের জমির মালিক মশিয়ার রহমান ও আয়ুব হোসেন রাস্তার ৫ফুট জায়গা অবৈধভাবে দখল করে স্থাপনা তৈরি করেছে। সোমবার সকালে সরজমিনে যেয়ে সরকারি রাস্তা দখল করে স্থাপনা তৈরির সত্যতা পাওয়া গেছে। এ স্থাপনা তৈরির কারণে কয়েকটি পরিবারের যাতায়াতের ব্যাপক সমস্যা হবে বলেও স্থানীয় রাস্তা ব্যবহারকারীরা জানান।

এ ব্যাপারে মশিয়ার রহমান বলেন, আমরা সরকারি জমি দখল করেনি। সরকারি ম্যাপ ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান যেভাবে দেখিয়ে দিয়েছে আমরা সেইভাবেই স্থাপনা তৈরি করেছি। এছাড়া যে স্থাপনা তৈরি করা হয়েছে, সেটা স্থায়ী না। স্থায়ী স্থাপনা তৈরির আগে বিষয়টি সম্পূর্ণ নিষ্পত্তি করেই করা হবে।

স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা নুর ইসলাম জানান, মশিয়ার রহমান ও আয়ুব হোসেন রাস্তার কিছু অংশ দখল করে স্থাপনা তৈরি করেছে। সরকারী জায়গা সঠিকভাবে নির্ধারণ করে তাদের স্থাপনা তৈরি করার প্রয়োজন ছিল।

রাস্তা ব্যবহারকারী মান্দার গাজী জানান, সরকারী রাস্তা একটি পক্ষ দখল করছে, আর আমরা বাড়িতে যাওয়ার পথ পাচ্ছি না। বিষয়টি প্রশাসন না দেখলে আমাদের ৪টি পরিবারের বাড়ি যাওয়ার পথ বন্ধ হয়ে যাবে।

পল্লী চিকিৎসক জাহাঙ্গীর আলম জানান, এই রাস্তা দখলের কারণে আমাদের চারটি পরিবারের যাতায়াতের সমস্যা হবে। ১০ ফুট রাস্তার মধ্যে ৫ফুট জায়গা দখলে নেয়া হয়েছে। ফলে আমাদের চারটি পরিবারের বাড়িতে কৃষিপণ্যের জিনিষপত্র আনা-নেয়াসহ যাতায়াত করা কঠিন হবে। এর আগেও তারা এ জায়গা দখল করতে গেলে স্থানীয় প্রশাসন তা বন্ধ করে দিয়েছিল। সর্বশেষ তারা রাতের আধারে এ স্থাপনা তৈরি করে সরকারি রাস্তা দখল করেছে।

ইউপি চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম জানান, রাস্তাটির একমুখ মোটা, আর একমুখ চিকন। ফলে দুইপাশের রাস্তার জমির মালিকদের সাথে সমন্বয় করে ১০ফুট রাস্তা বের করে দিয়েছিলাম। সেই সময় সবাই মেনে নিয়েছিল কিন্তু এখন আবার তারা পূর্বের সিদ্ধান্তে ফিরে গেছে এবং রাস্তা দখল করে স্থাপনা তৈরি করে বলে জানতে পেরেছি। উপজেলা প্রশাসনের সাথে আলোচনা করে পরে এব্যাপারে ব্যবস্থা নেয়া হবে।



আরও খবর