ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ বুধবার, ২৭ অক্টোবর , ২০২১ ● ১১ কার্তিক ১৪২৮

অভয়নগরে ছয় মেম্বারের বিরুদ্ধে ইউপি চেয়ারম্যানের অভিযোগ

Published : Wednesday 21-April-2021 20:48:00 pm
এখন সময়: বুধবার, ২৭ অক্টোবর , ২০২১ ০৩:০৯:০৪ am

অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি : অভয়নগর উপজেলার শ্রীধরপুর ইউনিয়ন পরিষদের ছয়জন ইউপি সদস্যের (মেম্বার) বিরুদ্ধে অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগ করে প্রকল্প স্থগিতের আবেদন করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী মোল্যা। অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) প্রকল্প স্থগিতের আবেদনপত্রটি মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আমিনুর রহমান বরাবর জমা দেয়া হয়।

ছয়জন ইউপি সদস্য হলেন- ১নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত আসনের মুসলিমা বেগম, ৪নং ওয়ার্ডের জাহিদুল ইসলাম কল্লোল, ৬নং ওয়ার্ডের মনিরুজ্জামান মনি, ৭নং ওয়ার্ডের সুলতান মোল্যা, ৮নং ওয়ার্ডের মোস্তফা ফকির ও ৯নং ওয়ার্ডের তিতু মিনা।  

লিখিত অভিযোগে বলা হয়েছে, শ্রীধরপুর ইউনিয়নের ছয়টি ওয়ার্ডে গত ৪ বছর ধরে অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি (ইজিপিপি) প্রকল্পে নামমাত্র কয়েকজন শ্রমিককে দিয়ে কাজ করান ইউপি সদস্যরা। অথচ ৩৫ জন শ্রমিকের হাজিরা দেখিয়ে তাদের স্বাক্ষর জাল করে ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলন করা হচ্ছে। হতদরিদ্রদের বাদ দিয়ে শ্রমিকের তালিকায় স্থান পেয়েছে ওইসব ইউপি সদস্যদের স্বামী, ভাই, বোন, চাচা, পুত্রবধূসহ অনেক নিকট আত্মীয়। যাদের অধিকাংশ ধনী।

অভিযোগে আরো উল্লেখ করা হয়েছে, একজন পিআইসি’র আওতায় ৩০ থেকে ৩৫জন শ্রমিকের নামের তালিকা আছে। কিন্তু প্রকল্পের কাজ চলাকালিন সময় প্রতিটি ওয়ার্ডে ৭ থেকে ১৫ জন শ্রমিককে কাজ করতে দেখা গেছে। গত ৪ বছর ধরে ওই ছয়জন ইউপি সদস্য অনিয়ম, দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে ইজিপিপি প্রকল্পের কাজ করে আসছে। যা প্রকল্পের নিয়ম বর্হিভূত ও স্বেচ্ছাচারিতা। সরেজমিনে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি করেছেন ইউপি চেয়ারম্যান।

৪ বছর পর অভিযোগ কেন এমন প্রশ্নের জবাবে ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী মোল্যা জানান, ইতোপূর্বে তাদেরকে বার বার সংশোধন হওয়ার জন্য অনুরোধ করেছি এবং মৌখিকভাবে সতর্ক করেছি। কোন ভালো ফল না পেয়ে ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ করতে বাধ্য হয়েছি।

এ ব্যাপারে ইউপি সদস্য সুলতান মোল্যা জানান, চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী মোল্যার বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রস্তাব দেয়ায় আমাদের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ করেছে। চেয়ারম্যান নিজেই একজন দুর্নীতিগ্রস্ত ব্যক্তি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আমিনুর রহমান জানান, শ্রীধরপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী মোল্যা তার পরিষদের ছয়জন সদস্যের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। সত্যতা যাচাই করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



আরও খবর